Wednesday, October 20, 2021

কবিতাগুচ্ছ - সুজিত বসু

মারিনাকে নিরুদ্দেশে

- সুজিত বসু

                                    
তোমার জন্যই বুঝি পুরাকালে একদিন জ্বলেছিল ট্রয়:
গালের গোলাপ তিলে প্রলোভন দুর্নিবার যুদ্ধ বিজয়ের,
আমার নামের অর্থে কত যে মুখর ব্যঙ্গ পেতে পেতে টের
তুমি গেলে নিরুদ্দেশে, অমৃত মন্থনে বিষ, ঘটেছে প্রলয়
প্রখর আতপ্ত  দিনে ভেদেনখার ভারতীয় শিল্প প্রদর্শনী
জ্যোৎস্নায়  নিষিক্ত হলো, চুম্বনের কারুকার্যে শিল্প সুষমায়;
ডিপ্লোম্যাট বিয়ারের ছায়াপটে দেখালে যে রহস্যের খনি
সোনার উল্টোনো বাটি, দুখানি নৈবেদ্যঘট, ভ্রান্ত দুরাশায়
দেবীর প্রসাদ ভেবে সভক্তি গ্রহণ করা, শুভ্র করতলে
তুলে দিই অর্চনার ঘন্টা আর কোশাকুশি, মঙ্গল প্রদীপও
সব কিছু ভেঙেচুরে ক্ষিপ্তা ব্যাধিনীর রোষে বালিকার ছলে
কোথায় লুকোলে তুমি, নিরুদ্দিষ্টা এ তোমার কার প্রতি ঘৃণা
কেউ তা জানে না, তুমি নিজে কি সঠিক জানো, জানো কি মারিনা!
 

পাঁচিল

- সুজিত বসু

                              
টাকার মধ্যে লুকিয়ে রেখেছে তারা
কিছুটা কি অভিমান
বড়ো স্নেহে তাই তুলে তুলে নেয় লোকে
রুমালেতে মোছে ঘাম
 
ব্যাংকে লকারে দিয়ে রাখে তাকে চাবি
তার বুঝি করে শীত
ঘাসের শিশির পড়ে থাকে ভিজে ভোরে
রাস্তার কংক্রিট
 
তারা চেয়ে চেয়ে দেখে মুগ্ধের চোখে
সকলেই অসহায়
মোহরের মেঘ অভিমানে জমে জমে
বৃষ্টি শুধু ঝরায়
 
আমিও পারিনি ফেরাতে দুচোখ লোভী
তুমিও পারোনি কিছু
দুজনের মাঝে পাঁচিল তুলেছি শুধু
ক্রমশ হয়েছি নিচু।

4 comments:

  1. কবি সুজিত বসুর লেখা আরও সুন্দর দুটি কবিতাই মারিনাকে নিরুদ্দেশে ও পাঁচিল আমার খুবই ভালো লেগেছে। আবারও কবির লেখা সুন্দর কবিতা পড়ার সুযোগ করে দেওয়ার জন্য শব্দদীপ কে অশেষ ধন্যবাদ।

    ReplyDelete
  2. কবি আমাদের আবারও দুটি সুন্দর কবিতা উপহার দিয়েছেন । কবির কবিতা গুলো পড়তে ভীষণ ভালো লাগে । কবির কবিতার মধ্যে একটা অন্য রকম মানে খুজে পাওয়া যায় । সেটা ভীষণ ভালো লাগে । কবি আমাদের এরকম নতুন নতুন কবিতা উপহার দেবেন ।সেই অপেক্ষা তে রইলাম আমরা ।।স্বপ্না ভট্টাচার্য্য।

    ReplyDelete
  3. অমিতাভ ভট্টাচার্য কলিকাতা শ্রী সুজিত বসু র এই দুটি কবিতা পাঁচিল আর মারিনাকা নিরুদ্দেশে দুটি কবিতা পড়লাম। খুব ভালো লাগলো। কবি শ্রী সুজিত বসু কে ধন্যবাদ জানাই। ওনার লেখা কবিতা পড়তে খুব সুন্দর লাগে।

    ReplyDelete
  4. সুজিত বসুর আরো দুটি কবিতা উপহার দেবার জন্য শব্দদ্বীপকে ধন্যবাদ। নিজেকে ভেঙেচুরে পুনর্নির্মাণের কবি সুজিত বসুকেও অনেক অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা। তিনি নিয়মিত অসাধারণ কবিতা দিয়ে আমাদের ঋদ্ধ করে চলেছেন। তাঁর প্রতিটি লেখায় উপরিতল ছন্দবদ্ধ টলটলে অথচ গভীরে তার কি আলোড়ন। এই আপাত বৈপরীত্য দিয়েই বোনকে সজোরে নাড়া দেয় কবির রচনাগুলি। নিজেকে আবিষ্কারের জন্যই আমি বারবার সুজিতকে পড়ি।

    ReplyDelete